ডাবল চকলেট কুকিজ – রেসিপি

0
713
ডাবল চকলেট কুকিজ
ডাবল চকলেট কুকিজ
Print Friendly, PDF & Email

লুবনার রেসিপি – ডাবল চকলেট কুকিজ

পুঁজা আমাদের নাকের ডগায় । তাই, নতুন কাপড় কেনায় আর সেই সাথে রকমারি নাড়ু বানানো নিয়ে সবাই অনেক ব্যস্ত । সেই ব্যস্ততাকে মাথায় রেখে আমার আজকের এই রেসিপি । সারাদিন বাহিরে ঘুরে এসে একটা কুকিজ আর এক কাপ চা কিছুটা ভাললাগা নিয়ে আসবে । বাচ্চাদের জন্য বাইরের কুকিজ এখন ঘরের ভিতরে । তাই বাচ্চারাও খুব খুশি মনে এক গ্লাস দুধের সাথে কুকিজের মজা নিতে পারবে ।

উপকরণ –

» বাটার – ১১২ গ্রাম

» সাদা চিনি – ১/২ কাপ 

» ব্রাউন সুগার – ১/২ কাপ

» ডিম – ১টা

» ময়দা – ১ কাপ

» লবণ – এক চিমটি 

» বেকিং পাউডার – ১/২ চা চামচ

» বেকিং সোডা – ১/২ চা চামচ

» হোয়াট চকলেট – ১/২ কাপ 

» মিল্ক চকলেট অথবা ডার্ক চকলেট – ১/২ কাপ

প্রস্তত প্রণালী –

১) বাটার আর চিনি এক সাথে ভাল করে মেশাতে হবে (ক্রিম এর মতো হবে)

২) ডিম ফেটিয়ে তারপর বাটারের মিশ্রনের সাথে আবার ১ মিনিট মেশাতে হবে

৩) মইদা, বেকিং পাউডার, বেকিং সোডা চালনিতে নিয়ে ভাল করে চেলে নিতে হবে

৪) এই বার বাটার ক্রিমের সাথে ময়দার মিশ্রনটি ভাল করে মেশাতে হবে (কাঠের চামচ দিয়ে)

৫) এই বার মিশ্রনের মধ্যে হোয়াইট এবংমিল্ক চকলেটটা দিয়ে ভাল করে মিশিয়ে দিন

৬) এই বার মিশ্রন থেকে ছোট ছোট বল করে বেকিং ট্রেতে রাখুন। মনে রাখবেন একটা বলের সাথে অন্য বলটা বেশ দূরত্বে রাখতে হবে কারন ওভেনে দেওয়ার পর কুকিজগুলি সাইজে বেশ বড় হয়ে যাবে। 

*** এই বার প্রি-হিট ওভেনে ১৬০ সেলসিয়াসে এ ১৫ মিনিট বেকিং করুন। ***

 

* কুকিজ হয়েছে কিনা বোঝার সব থেকে ভাল উপায়, যখন কুকিজের চারপাশ হাল্কা বাদামি হয়ে যাবে তখন বুঝতে হবে হয়ে গেছে। ওভেন থেকে বের করে ঠান্ডা হতে দিন।

 

পরিবেশন/সংরক্ষণ –

ঠান্ডা হলে পরিবেশন করুন অথবা এয়ার টাইট কোনও বক্সে রেখে দিন। তিন/চার দিন রেখে খেতে পারবেন। আবার অনেক সময় আপনি কুকিজ যে কয়টি চান ঠিক সেই কয়টি বেকিং করতে পারেন। বাকি খামিরটা ফ্রিজে রেখে দিবেন। এই খামির আপনি ১৫ দিন পর্যন্ত রেখে খেতে পারেন।

মনে রাখবেন কুকিজের চারপাশে একটু শক্ত হবে কিন্তু মাঝখানে বেশ নরম হবে। এই কুকিজের মাঝে ভ্যানিলা আইসক্রিম দিয়ে স্যান্ডউইচ বানিয়ে পরিবেশন করতে পারেন। 

ছবিতে আমি আপনাদের জন্য কুকিজ আইসক্রিম স্যান্ডউইচ বানিয়ে দেখিয়েছি।

আশাকরি এই বার পুঁজায় নাড়ুর পাশাপাশি আপনি নিজের হাতে বানানো কুকিজও পরিবেশন করতে পারবেন। সবার জন্য রইল শারদিয় শুভেচ্ছা। 🙂

আরও জানুন » রুটি কাবাব – রেসিপি »

রেসিপিটি আপনার কেমন লাগলো তা আমাদেরকে অবশ্যই জানাবেন। আপনার মতামত আমাদের কাছে খুবই মূল্যবান। আপনি যদি আপনার নিজের লেখা রেসিপি, কবিতা, গল্প, প্রবন্ধ বা অন্য যেকোনো বিষয় বাঙালিয়ানা Magazine এ প্রকাশ করতে চান, তবে আমরা অত্যন্ত আনন্দের সাথে আপনার লেখা প্রকাশে সচেষ্ট হব । আগ্রহীদের এই ইমেইল ঠিকানায় bangalianamagazine@gmail.com যোগাযোগের জন্য আমন্ত্রণ জানানো হল । Copy করা কোন লেখা পাঠাবেন না। দয়া করে আপনাকে নিশ্চিত করতে হবে যে, আপনার পাঠানো লেখাটি অনলাইনে আগে কোথাও প্রকাশিত হয়নি। যদি অনলাইনে আগে অন্য কোথাও আপনার লেখাটি প্রকাশিত হয়ে থাকে, তাহলে আমরা সেটা প্রকাশ করতে পারব না। আমরা অরাজনৈতিক, অসাম্প্রদায়িক এবং নিরপেক্ষ।

Comments

comments